1. admin@upokulbarta.news : admin :
বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১১:২৬ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ভেদুরিয়া চরকালী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ফান্ডের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ প্রধান শিক্ষক সিরাজুল ইসলাম এর বিরুদ্ধে ভেদুরিয়ায় নবগঠিত ইউনিয়ন কমিটির আনন্দ মিছিলে দুষ্কৃতিকারীদের অতর্কিত হামলার অভিযোগ লালমোহনে স্বামী কর্তৃক স্ত্রী নির্যাতনের অভিযোগ আরডিএ’র নির্বাহী প্রকৌশলীর বিরুদ্ধে ২শ ৬ কোটি টাকার কাজে অনিয়ম দুর্নীতির অভিযোগ ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে সুস্থ স্বাস্থ্যের জনশক্তি হিসেবে গড়ে তুলতে হবে সিদ্ধিরগঞ্জ,চৌধুরী বাড়ী বাইতুল মা’মুর জামে মসজিদের পুনঃনির্মান ভিত্তি প্রস্তর উদ্বোধন মোহনপুরে শহীদ বুদ্ধিজীবী ও মহান বিজয় দিবস উদযাপনে প্রস্তুতিমূলক সভা অনুষ্ঠিত পটুয়াখালীতে স্কুল ঝড়ে পড়া ১৭ হাজার শিশুদের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু জেলে পরিবারের নারীদের অধিকার আদায়ে ভোলায় নেটওয়ার্কিং প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত রাস্তা কেটে বরযাত্রীকে আটকে দেওয়া আলোচিত সেই মেম্বার এর নেতৃত্বে জমি দখলের অভিযোগ, সংঘর্ষ, আহত-১

সেকাল আর একাল- মো: জাহাঙ্গীর আলম

মোঃ জাহাঙ্গীর আলম , সহকারী পরিচালক, কোস্ট ফাউন্ডেশন।
  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ৫ আগস্ট, ২০২২
  • ১৩৮ বার পঠিত

বিশেষ প্রতিনিধিঃ

এই যুগটা একেবারে আলাদা। একসময় মানুষ সহজ সরল ছিলো। মানবিক ছিলো। একজনের বিপদে আরেকজন এগিয়ে যেতো। ১৯৪৭ সালের পর মানুষ খুব দ্রুত বদলে যেতে শুরু করে। বদলাতে বদলাতে মানুষ এখন নিষ্ঠুর এবং অমানবিক হয়ে গেছে। কাজেই এ যুগে কারো সাথে মিলেমিশে থাকা যায় না। সম্ভব না। আপন মার পেটের ভাই বোনের সাথেও মিলেমিশে থাকা যায় না। দ্বন্দ লেগেই আছে। ঘরে বাইরে সব জায়গায় দ্বন্দ।
কারো মধ্যে ছাড় দেওয়ার মানসিকতা নেই। প্রতিটা ঘরে ঘরে একই কাহিনী। এযুগের মানুষ জানে না তার পাশের ফ্ল্যাটের লোকজন কেমন আছে। জানতে চায় না। দিন দিন মানুষ বড় আত্মকেন্দ্রিক হয়ে যাচ্ছে।
আপনি সকালে অফিসে যাবেন, বাসে উঠতে হলে আপনাকে যুদ্ধ করতে হবে। কেউ একজন কোনো রকমে বাসে উঠতে পারলে সে আর অন্য কাউকে সুযোগ দেবে না। বাসের দরজার সামনে দাঁড়িয়ে থাকবে। হাজার অনুরোধ করেও তাকে সরানো যাবে না। অফিসে গিয়েও শান্তি পাবেন না। অফিস পলিটিক্স আপনাকে দৌড়ের উপর রাখবে। তখন চাকরী কি করে বাচাবেন এই চিন্তায় আপনাকে অস্থির হয়ে থাকতে হবে।
কথায় বলে, বোবার কোনো শত্রু নেই। এই সমাজে টিকে থাকতে হলে, ভালো থাকতে হলে- বোবা হয়ে যেতে হবে। অন্যায় অবিচার দেখেও না দেখার ভান করতে হবে। এখন একজন মানুষের সাথে আরেকজন মানুষের দীর্ঘদিন সম্পর্ক থাকে না। এর কারন কি? এর কারন হচ্ছে- কেউ কারো ভালো সহ্য করতে পারে না। বাঙ্গালী বড্ড হিংসাপ্রবন। এই সমাজের লোকজন- কারো ক্ষতি হয়েছে, কেউ বিপদে আছে- শুনলে খুশি হয়। তালি দেয়।
এই সমাজে কেউ কারো না। মানুষের লোভ, হিংসা, আত্মকেন্দ্রিকতা, হিংসাত্মক মনোভাব, নিম্ম মানসিকতা, রেষারেষি, কুটিলতা জটিলতার কারণে- একান্নবর্তী পরিবার গুলো ভাঙতে ভাঙতে আজ আর একান্নবর্তী পরিবার চোখে দেখা যায় না। সবাই আলাদা হয়ে গেছে। সবাই বদলে গেছে। এযুগের মানুষ তার নিজের পরিবারের বাইরে কারো কথা ভাবে না। চিন্তা করে না।
আজ যে বন্ধু, কাল সে শত্রু। এজন্য এযুগে সত্যিকারের ভালো মানুষ নেই। মহৎ মানুষ নেই। হৃদয়বান মানুষ নেই। ভিতরে ভিতরে একজন আরেকজনের শত্রু। সুযোগ পেলেই ছোবল দিবে।

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা