1. admin@upokulbarta.news : admin :
  2. bangladesh@upokulbarta.news : যুগ্ম সম্পাদক : যুগ্ম সম্পাদক
  3. bholasadar@upokulbarta.news : বার্তা সম্পাদক : বার্তা সম্পাদক
বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ০১:৫১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
নানা আয়োজনে পলিত হচ্ছে দৈনিক পত্রদূত সম্পাদক স.ম আলাউদ্দীন মৃত্যুবার্ষিকী সাতক্ষীরায় ২৪১ জনের মাঝে ১৭ লাখ টাকার অনুদানের চেক বিতরণ কুমিল্লায় দেশ ও জাতির কল্যাণে দোয়া ঈদ উপলক্ষে রেমালে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে খাদ্য বিতরণ করলো মাহাবুবা মতলেব তালুকদার ফাউন্ডেশন ৷ ভোলায় ঘুর্ণিঝড় রিমেলে ক্ষতিগ্রস্ত ২৫০ পরিবারের মাঝে ১৫ লক্ষ টাকা বিতরণ করল কোস্ট ফাউন্ডেশন মোংলায় দিন দুপুরে দোকান ঘর ভাংচুর ও জবর দখলের চেষ্টা বর্তমান সরকার অসহায় দুস্থদের সরকার-মেয়র শেখ আ: রহমান জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় পরিকল্পনা আছে বটে, কিন্তু বাস্তবায়নে বাজেট নেই বাগেরহাটে কলেজ শিক্ষকদের বেসিক আইসিটি প্রশিক্ষণের সনদ প্রদান বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে ফকিরহাটের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যানগণের শ্রদ্ধা নিবেদন

পোষ্য পুত্রকে বিয়ে করলেন স্কুল শিক্ষিকা।

চরফ্যাশন উপজেলা প্রতিনিধি:
  • আপডেট সময় : বুধবার, ২২ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ২০৮ বার পঠিত

পোষ্য পুত্রকে গোপনে বিয়ে করেছেন ৩১ নং উত্তর শশীভুষণ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা নাজমা বেগম। ঘটনাটি দীর্ঘ ২২ বছর গোপন থাকলেও তার ছেলে নাইমের দায়ের করা ১টি ফৌজদারী মামলায় প্রকাশ পেয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার শশীভুষণ থানার রসুলপুর ইউনিয়নে। এলাকাবাসী সুত্রে জানা গেছে ইদ্রিস মাঝির মেয়ে নাজমা বেগম ২২ বছর পুর্বে লালমোহন উপজেলার লর্ডহাডিঞ্জ ইউনিয়নের রাঢ়ী বাড়ীর আবুল বশার নামক ১৬ বছর বয়সী ছেলে হিসেবে পালন করতেন।

এ সময় নাজমা বেগমের স্বামী মোসলেউদ্দিন এলাকায় তাদেও আপত্তিকর বিভিন্ন গুঞ্জনের প্রতিবাদ করলে নাজমা বুকের তার দুধ জনসমক্ষে খাইয়ে আবুল বশারকে দুগ্ধ পোষ্য পুত্র হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করে গোপনে নাজমা বেগম নোটারী পাবলিক বা এফিডেফিট করে মনকুহে আবুল বাশারকে বিয়ে করেন। এ ঘটনার পর নাজমার স্বামী মোসলেউদ্দিন মানষিকভারসাম্যহীন হয়ে শশীভুষণ বাজার এলাকায় বিবস্্র জবিনযাপন করেন। ইতিপুর্বে মোসলেউদ্দিনের কর্কট রোগ দেখা দেয়। চিকিৎসাহীনতার কারনে মোসলেউদ্দিন মানবেতর জীবনযাপন ও কর্কট রোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেন। দীর্ঘদিন বছর পর আবুল বশার নিজেকে অবিবাহিত দাবী করে ৮ বছর পুর্বে ঢাকায় এক সেবিকাকে বিয়ে করে সাংসারিক জীবনে প্রবেশ করেন। নাজমা বেগম তার স্বামী মনকুহে আবুল বশারকে ফিরে পেতে ঢাকার বাসায় গিয়েও স্বামীর অধিকার পেতে চাপ প্রয়োগ করলে বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হয়। এলাকাবাসী নাজমা বেগমকে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি আবুল বশারকে ছেলে হিসেবেই পরিচয় দেন।

সম্প্রতি নাজমা বেগমের ছেলে নাইম( ২৩) তাদের বাড়ির দরজা মসজিদের জমি দখলের বিষয় নিয়ে মসজিদ কমিটির বিরুদ্ধে চরফ্যাশন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে এমপি নং ২১৬/২১ দায়ের করলে সেখানে পোষ্য পুত্র আবুল বশারকে স্বামী হিসেবে প্রকাশ করেছেন। এ ঘটনায় এলাকার মানুষ নাজমাকে বিভিন্ন ধরনের মন্তব্য করতে শোনা গেছে। স্থাণীয় শাহাদাৎ হোসেন ছাদু খলিফা, মোজাম্মেল হক ও শফিক হাওলাদার জানান, ২২ বছর আগে আবুল বাশারের এ বাড়িতে যাতায়াত ও অবস্থান নিয়ে সমাজে কথা উঠলে মোসলেউদ্দিন ৩৫ বছর বয়সী নাজমাকে চ্যালেঞ্জ করে।

নাজমা আবুল বশারকে পুত্র হিসেবে স্বীকৃতি দিতে আমাদের সামনে বুকের দুধ নামিয়ে গ্লাসে করে খাইয়েছে। ২২ বছর পর দুগ্ধ পোষ্য পুত্রকে কিভাবে স্বামী হিসেবে গ্রহণ করেন। এ বিষয়ে ৩১ নং উত্তর শশীভুষণ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা নাজমা বেগমের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, মসজিদ কমিটির লোকজনই আমার বিরুদ্ধে সমাজে কুৎসা রটাচ্ছে। মসজিদ কমিটি সহ এলাকার মুসল্লিদের দাবী এটি ইসলাম পরিপন্থী বিয়ে তাই এদেরকে আইনের আওতায় এনে বিচার করলে সমাজ থেকে অপরাধ প্রবণতা কমতে পারে।

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা