1. admin@upokulbarta.news : admin :
রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ০৩:১১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
আদালত ঢোল পিটিয়ে জমি বুঝিয়ে দিলেও চলছে হামলা ও লুটপাট সাধারণ শিক্ষার্থী ও দলের কল্যাণে কাজ করতে চান ছাত্রনেতা বাচ্চু বিএনপির গণসমাবেশ উপলক্ষে মোহনপুরে লিফলেট বিতরণ ও প্রস্তুতি সভা ডুবে যাওয়া লাইটার মালিকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে বন্দর কর্তৃপক্ষ! পটুয়াখালীর ২০ শিশু সাংবাদিক পেলো সনদপত্র জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবে উপকুলীয় অঞ্চলের দরিদ্র মানুষের নিরাপদ খাবার পানি ও স্যানিটেশনের দূরবস্থা পটুয়াখালীর নতুন ডিসি জয়পুরহাটের ডিসি শরীফুল ইসলাম ভোলার দৌলতখানে পুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবক নিখোঁজ; দুই কনস্টেবল বরখাস্ত ভোলায় ঢাকঢোল বাজিয়ে ব্রাজিল সমর্থকদের শোভাযাত্রা বিদেশী জাহাজের চোরাই মাল উদ্ধার করলো কোষ্টগার্ড

পাঠানটুলি কিশোর গ্যাং রাব্বী-আমান বাহিনী বেপরোয়া কিশোর গ্যাং রাব্বী বাহিনীর কাছে নীট কনর্সান গ্রুপের শ্রমিকরা জিম্মি

সহকারী সম্পাদক
  • আপডেট সময় : বুধবার, ৫ অক্টোবর, ২০২২
  • ৪৯ বার পঠিত
স্টাফ রিপোর্টারঃ
সিদ্ধিরগঞ্জ নাসিক পাঠানটুলি এলাকায় রাব্বী,আমান বাহিনী বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। মাদক ব্যবসা, গার্মেন্টস কর্মীদের বেতনের টাকা মোবাইল ছিনতাই সহ নানা অপকর্ম করে বেড়াচ্ছে। এই বাহিনীর অত্যাচারে পাঠানটুলি নীট কনসার্ন গ্রুপের শ্রমিকরা ও এলাকা বাসীরা অতিষ্ঠ।
তথ্য সূত্রে জানা যায় পাঠানটুলি, এসি আই পানিরকল, কো-অপারেটিভ এরিয়ায় জমজমাট মাদক ব্যবসা গড়ে তোলেছে এই রাব্বী বাহিনী। রাব্বী পিতা মিসির আলী, আমান পিতা কাল্লু ভূইয়া, অভি,  শাওন সহ এই বাহিনীর সবাই   মাদকের সাথে লিপ্ত হয়ে এলাকায় এক বিশাল কিশোর গ্যাং বাহিনী গড়ে তুলেছে।
অভিযোগ সূত্রে আরো জানা যায় কিশোর গ্যাং রাব্বী,আমান, শাওন, অভি স্থানীয় ভাড়াটিয়া, দীর্ঘদিন যাবত পাঠানটুলি এলাকার বহিরাগত নেতাদের ছত্র ছায়ায় থেকে স্কুল, কলেজ পড়ুয়া ছাত্রীদের ইভটিজিং নীট কনসার্ন গ্রুপের শ্রমিকদের ইভটিজিং ও ছিনতাই পকেট মার,ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছে।
নীট কনসার্ন গ্রুপের শ্রমিক তবিবুর রহমান বলেন আমি নীট কনসার্ন গ্রুপে দীর্ঘ দিন যাবত চাকুরি করে আর্সছি হঠাৎ একদিন আমার পায়ে পা দিয়ে ঝগরা শুরু করলো তারপর পাঠানটুলি মসজিদের সামনে মোখলেসুর রহমানের বাড়ির ৪র্থ তলায় নিয়ে গিয়ে এক প্রকার বেদম মারধর শুরু করে বলে এই মাসের পুরো বেতন আমার এখানে দিয়ে জাবি নয়তো প্রাণে মেরে ফেলবো তারপর বেতন হলে আমাকে চোখে চোখে রাখে বেতন হওয়ার সাথে সাথেই আমার পুরো বেতন ও মেবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়। তারপর অফিস কর্তৃপক্ষকে জানালে তারা বাহিরের বিষয় বলে আমলে নেন না।আমি সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে  একটি সাধারণ ডাইরি করে রেখেছি।
এলাকাবাসী জানান পাঠানটুলি এলাকায় শিল্প প্রতিষ্ঠান থাকায় দেশের বিভিন্ন স্থানের মানুষ এসে বসবাস করছেন তাই পাঠানটুলি একটি ঘনবসতি এলাকা। সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে বেপরোয়া হয়ে পরেছে রাব্বী -আমান বাহিনী।
এ বিষয়ে স্থানীয় কাউন্সিলর ইফতেখার আলম খোকন’কে   ফোনে কল দিলে তিনি বলেন আমি হজ্ব করে আসার পরে এমন একটি ঘটনা শুনেছি  তবে নিদিষ্ট কোন তথ্য প্রমাণ না পাওয়ায় এক্যাশানে যেতে পারিনি আপনারা সাংবাদিক আপনাদের সহযোগিতা পেলে কিশোর গ্যাং নির্মুল করবো।
সিদ্ধিরগঞ্জ থানার অফিসার  ইনচার্জ মশিউর রহমানকে কল দিলে তিনি বলেন কিশোর গ্যাং এখন চরম আকারে ধারন করেছে আমরা প্রতিনিয়ত পদক্ষেপ নিচ্ছি অপরাধী যত বড়ই হউক না কেন আইনের কাছে ধরা পরতেই হবে এবং আমাদের অভিযান অব্যহত আছে।
এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা