1. admin@upokulbarta.news : admin :
শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:৪৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
২০২৪-২৫ বাজেটে সব ধরনের তামাকপণ্যের কর ও মূল্য বৃদ্ধির দাবিতে বিড়ি শ্রমিকদের মানববন্ধন মোহনপুরে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী মেলার উদ্বোধন লালমোহনে ৪৮০ টাকা পাওয়ানাকে কেন্দ্র করে মারপিট আহত ৬ শেখ হেলাল উদ্দীন সরকারি কলেজে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উদযাপন ফকিরহাটে প্রান্তিক খামারিদের প্রদর্শনী দেখে অভিভূত সবাই নিজের বিবেক দ্বারা পরিচালিত হয়ে উপজেলা নির্বাচনে জনপ্রতিনিধি নির্বাচিত করবেন-রামপালে কেসিসি মেয়র উম্মুক্ত হোন,উদার হোন এবং অন্যদের নেতৃত্বের জন্য স্থান তৈরি করুন-রেজাউল করিম চৌধুরী লালমোহনে চাচা শ্বশুরকে হত্যার হুমকি দিলেন ভাতিজী জামাতা গালকাটা ফরিদ বোরহানউদ্দিনে পুকুরে ডুবে শিশুর মৃত্যু ফকিরহাটে বিষ পানে এসএসসি শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

মেঘনায় ধরা পড়া সেই ‘কাঁকড়া’ চুরি

ব্যবস্থাপনা সম্পাদক
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২৩ মে, ২০২৩
  • ১০৩ বার পঠিত

জেএম.মমিন, বোরহানউদ্দিন প্রতিনিধিঃ

ভোলার মেঘনা নদীতে জেলের জালে ধরা পড়া বিরল প্রজাতির সেই কাঁকড়াটি চুরি হয়েগেছে ৷

সোমবার দিবাগত রাতে জেলে ফারুক মাঝির নৌকা থেকে কে বা কাহারা চুরি করে নিয়ে যায় পানপাতা মাছের মতো দেখতে রাজ কাঁকড়াটি ৷

গত বুধবার ভোলার তজুমদ্দিনের মেঘনা নদীতে মাছ ধরতে গিয়ে বোরহানউদ্দিন উপজেলার সাচড়া গ্রামের ফারুক মাঝির জালে এটি ধরা পরে ৷ কাঁকড়াটি অনেকেই তার নৌকায় এসে দেখেছেন ৷

ফারুক মাঝি বলেন, কাঁকড়াটি পাওয়ার পর একটি পাত্রে পানি রেখে সেটার মধ্যে রেখে দেই ৷পরে বোরহানউদ্দিন উপজেলার সাচড়া ইউনিয়নের দরুন বাজারের বাড়িতে যাই। নৌকার মধ্যে থাকা ওই কাঁকড়াটি পাহারা দেওয়ার জন্য একজনকে ৫০০ টাকাও দিয়েছিলাম। কিন্তু আজ সকালে এসে দেখি নৌকার মধ্যে কাঁকড়াটি নেই। রাতের আঁধারে কে বা কারা যেন এটি চুরি করে নিয়ে গেছে।’

তিনি আরো জানায়, কথিত রয়েছে এই কাঁকড়ার দাম নাকি কয়েক লাখ টাকা। তাই হয়তো কেউ লোভ সামলাতে পারেনি এজন্য চুরি করে নিয়ে গেছে ৷

গবেষকদের মতে, এই কাঁকড়াটি হলো Horseshoe Crab লিমুলাস। এটি “রাজ কাঁকড়া” নামেও পরিচিত। এরা প্রধানত অগভীর সমুদ্র ও নরম বালি বা কাদা সমৃদ্ধ সমুদ্রতলে বাস করে। আজ থেকে ৪৫ কোটি বছর আগে বিবর্তিত হয়ে এতদিন প্রায় অবিকৃত চেহারায় থেকে যাওয়ার জন্য এদের জীবন্ত জীবাশ্ম হিসেবে গণ্য করা হয়। এদের রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা উন্নত হওয়ায় অঙ্গসংস্থানিক পরিবর্তন ছাড়াই এরা পৃথিবীতে টিকে আছে।

জেলা মৎস কর্মকর্তা মোল্লা এমদাদুল্যাহ জানান, এটা Horseshoe Crab নামে একধরনের কাঁকড়া ৷ অগভীর সমুদ্র ও নরম বালি বা কাদা সমৃদ্ধ সমুদ্রতলে বাস করায় নদীতে এগুলো সচারচর দেখাযায় না ৷ বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মানুষ এগুলো খেলেও আমাদের দেশে এগুলো কেউ খায় না ৷ এগুলোর দাম নিয়ে লোক মুখে যা শোনা যায় সেগুলো গুজব তার কোনো ভিত্তি নেই ৷

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা