1. admin@upokulbarta.news : admin :
রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ০৩:৫১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
আদালত ঢোল পিটিয়ে জমি বুঝিয়ে দিলেও চলছে হামলা ও লুটপাট সাধারণ শিক্ষার্থী ও দলের কল্যাণে কাজ করতে চান ছাত্রনেতা বাচ্চু বিএনপির গণসমাবেশ উপলক্ষে মোহনপুরে লিফলেট বিতরণ ও প্রস্তুতি সভা ডুবে যাওয়া লাইটার মালিকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে বন্দর কর্তৃপক্ষ! পটুয়াখালীর ২০ শিশু সাংবাদিক পেলো সনদপত্র জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবে উপকুলীয় অঞ্চলের দরিদ্র মানুষের নিরাপদ খাবার পানি ও স্যানিটেশনের দূরবস্থা পটুয়াখালীর নতুন ডিসি জয়পুরহাটের ডিসি শরীফুল ইসলাম ভোলার দৌলতখানে পুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবক নিখোঁজ; দুই কনস্টেবল বরখাস্ত ভোলায় ঢাকঢোল বাজিয়ে ব্রাজিল সমর্থকদের শোভাযাত্রা বিদেশী জাহাজের চোরাই মাল উদ্ধার করলো কোষ্টগার্ড

ভোলার লালমোহনে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে এক ব্যাক্তিকে পিটিয়ে আহত

সহকারী সম্পাদকঃ
  • আপডেট সময় : রবিবার, ২৩ অক্টোবর, ২০২২
  • ৩১ বার পঠিত

আশিকুর রহমান শান্তঃ

ভোলা জেলার লালমোহন উপজেলার কর্তার হাট বাজারে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সিদ্দিক (৪২) নামের শতাব্দী বাস কাউন্টারের মালিক কে কুপিয়ে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে বি-শ্যামলি কাউন্টারের স্টাফ আকবরের বিরুদ্ধে। রোববার (২৩ অক্টোবর) সকাল ৭ টা ১০ মিনিটের সময় কর্তার হাট-বাজারের বাস কাউন্টার গুলোর স্থানে এ ঘটনা ঘটেছে।

আহত অবস্থায় সিদ্দিককে স্থানীয়রা উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসে। স্থানীয়রা সূত্রে জানা যায় , সকালে লালমোহন উপজেলার কর্তার হাট বাজারে বাস কাউন্টারে টিকেট বিক্রিতে নিয়োজিত শতাব্দী বাস কাউন্টারের মালিক সিদ্দিক এর কাছে এক যাত্রী এসে ৬০০ টাকার টিকেট ৫৫০ টাকা দিবে কিনা জানতে চায়, সিদ্দিক তা দিতে অস্বীকৃতি জানালে যাত্রী অন্যদিকে চলে যায়। পাশেই অবস্থিত বি- শ্যামলী কাউন্টারে স্টাফ আকবর যাত্রীকে ডাক দিয়ে ৬০০ টাকায় যাবে কিনা জিজ্ঞেস করলে যাত্রী যেতে অপারগতা প্রকাশ করে।

সে যাত্রী আবারো শতাব্দী কাউন্টারের সিদ্দিকের কাছে এসে ৫৫০ টাকা দিবে কিনা জিজ্ঞেস করে। পরে সিদ্দিক ৫৫০ টাকায় টিকেটটি যাত্রীরির হাতে দিয়ে যাত্রীকে গাড়িতে উঠিয়ে দেওয়ার জন্য কাউন্টার থেকে বের হয়ে গাড়ির দিকে যাওয়ার সময় হঠাৎ আকবর পিছন থেকে এসে সিদ্দিক কে আঘাত করে। আঘাতে সিদ্দিকের মাথা ফেটে প্রচুর রক্তক্ষরণ হতে থাকে। তাৎক্ষণিক সিদ্দিকের ডাক-চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে আসলে অভিযুক্ত আকবর ঘটনা স্থল থেকে পালিয়ে যায় ।

গুরুতর আহত অবস্থায় স্থানীয়রা সিদ্দিককে উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসে। সিদ্দিক বর্তমানে ভোলা সদর হাসপাতালের পুরুষ সার্জারি ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে। এই বিষয়ে অভিযোগটা আকবরের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তার ব্যবহৃত ফোন নাম্বারটি বন্ধ থাকায় তার বক্তব্য জানা সম্ভব হয়নি। লালমোহন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহাবুবুর রহমান জানান, তিনি এ বিষয় অবগত নয় থানায় এ বিষয়ে লিখিত কোন অভিযোগ পাওয়া যায় নি। লিখিত অভিযোগ পেলে আমরা আইনগত ব্যবস্থা নিব।

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা