1. admin@upokulbarta.news : admin :
রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:৪৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
মেঘনা নদীতে কর্ণফুলী-৩ লঞ্চে আগুন, আতঙ্কিত যাত্রীরা ভোলায় পুকুরে ডুবে ভাই-বোনের মৃত্যু ফকিরহাটের শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করে স্বপন দাশের প্রচার শুরু চরফ্যাশনে ভিকটিমকে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে ম্যাজিস্ট্রেট মোস্তাফিজুর রহমান এর বিরুদ্ধে আদালতের আদেশ মানতে গড়িমসি করছেন খুলনা বিভাগীয় পরিবার পরিকল্পনা পরিচালক রবিউল আলম বাইউস্টে নবীন শিক্ষার্থীদের ওরিয়েন্টেশন প্রোগ্রাম অনুষ্ঠিত Sustainability with Profitability is Possible-Rezaul Karim Chowdhury লালমোহনে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মারপিট আহত ১ ২০২৪-২৫ বাজেটে সব ধরনের তামাকপণ্যের কর ও মূল্য বৃদ্ধির দাবিতে বিড়ি শ্রমিকদের মানববন্ধন মোহনপুরে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী মেলার উদ্বোধন

গরু চোরের সংবাদ প্রকাশের জেড়ে ৬ সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মানহানি মামলা

স্টাফ রিপোর্টারঃ
  • আপডেট সময় : সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০২৩
  • ২০৩ বার পঠিত

ভোলায় গরু চুরির সংবাদ করায় ৬ সাংবাদিকের বিরুদ্ধে সাইবার ট্রাইবুনালের মিথ্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মাওলানা কাসেমের ছেলে বোরহানউদ্দিন পৌরসভা ৪ নং ওয়ার্ডের আহাম্মদিয়া মাদ্রাসার বাসিন্দা মো: নেছারউদ্দিন বাদী হয়ে বরিশাল সাইবার ট্রাইবুনাল মামলা দায়ের করেন।

জানা যায়, গত ১৮ জুলাই (মঙ্গলবার) দিবাগত রাত ৩ টায় বোরহানউদ্দিন উপজেলা পক্ষিয়া ইউনিয়ন ৮ নং ওয়ার্ডের আব্দুস সোবহানের তিনটি আব্দুল বারেকের তিনটা মিলে ৬ টি গরু চুরি হয়। গরুর পায়ের চিহ্ন ধরে বোরহানউদ্দিন পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ডে আহম্মদিয়া মাদ্রাসায় পুলিশি অভিযান চালিয়ে চোরাই গরুসহ ১০ জনকে আটক করেন।

মাদ্রাসা থেকে ৬ টি গরু ১ টি মোটরসাইকেল, ১ টি পাম্প মেশিন উদ্ধার করেন পুলিশ। সেখান থেকে মাদ্রাসার ৪ শিক্ষার্থী এবং চোর চক্রের গডফাদার নেছার উদ্দিনের ৬ (ছয়) স্ত্রী (তিন স্ত্রীর কাবিননামা পাওয়া গেলেও বাকি তিনজনের কাবিন পাওয়া যায়নি) আটক করে থানায় নিয়ে যায়। ওই ঘটনায় আসামিদেরকে ভোলার বিজ্ঞ জজ আদালতে সোপর্দ করা হয়। মাদ্রাসা শিক্ষার আড়ালে গরু চুরির ঘটনা দেশব্যাপী ব্যাপক আলোচিত হয়।

সংবাদকর্মীরা ঘটনা স্থলে গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করে সংবাদ প্রকাশ করেন। এর আগেও নেছারুউদ্দিনের বিরুদ্ধে গরু চুরির অভিযোগে ভোলার আদালতে মামলা রয়েছে। গরু চুরির সংবাদ প্রকাশ করায় ক্ষিপ্ত হয়ে তোর চক্রের মূল হোতা নেসার উদ্দিন ভোলা জেলা অনলাইন প্রেসক্লাবের সভাপতি তুহিন খন্দকার সহ আরো ৫ জনের নাম উল্লেখ করে সাইবার ট্রাইবুনালে মিথ্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলার বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক সমালোচনার ঝড় তোলে। সকলে গরু চোরের ক্ষমতার উৎস সম্পর্কে জানার আগ্রহ প্রকাশ করে। ৬ সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে ভোলা জেলার সকল সাংবাদিক সংগঠন ও সংবাদকর্মীদের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়।

মামলার বিষয়ে অভিযুক্ত নেশারুদ্দিনের মুঠোফোন একাধিকবার কল করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ না করায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

এ বিষয়ে ভোলা জেলা অনলাইন প্রেস ক্লাব সভাপতি তুহিন খন্দকার জানায় আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে চোরাই গরুসহ ১০ জনকে আটক করে থানায় নেয়। পুলিশ ও স্থানীয়দের বক্তব্য অনুযায়ী আমরা অনেকে সংবাদ প্রকাশ করেছি। একটি কুচক্রী মহলের ইন্দনে গরু চোর আমাদের বিরুদ্ধে সাইবার ট্রাইব্যুনালে মামলার বিষয়টি অত্যন্ত দুঃখজনক।

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা